Connect with us

সঙ্গীত

কখনও ভাবিনি আমি শিল্পী হব : মেজবাহ

Published

on

মেজবাহ রহমান

ডিফারেন্ট টাচ ব্যান্ডের ভোকালিস্ট মেজবাহ রহমান। নব্বই দশকের সাড়া জাগানো গান ‘শ্রাবণের মেঘগুলো জড়ো হল আকাশে’ তারই গাওয়া। পরবর্তিতে অসংখ্য জনপ্রিয় গান উপহার দিয়েছেন এ সঙ্গীতশিল্পী। দীর্ঘ ক্যারিয়ারে হাজারো শ্রোতাদের ভালোবাসায় সিক্ত হলেও নিজেকে সবসময় একটু আড়ালেই রাখেন তিনি। তাই বলে তার জনপ্রিয়তা কমেনি কোনো অংশে। গানের পাশাপাশি বিনয়ী ভাবের জন্য অনেকের প্রিয় মানুষও এ শিল্পী।


সঙ্গীতে পথচলা শুরু কীভাবে?

আমি তখন এসএসসি পরীক্ষা দিয়েছি। অবসর সময়। হঠাৎ আমার এক বন্ধু বলল গিটার শিখতে যাবে। সে সাইকেলে চড়ে যাবে। আমি যেন গিটারটা বহন করি, সে সাইকেল চালাবে। সে জন্য তার সঙ্গে আমাকে যেতে হবে। আমিও রাজি হয়ে গেলাম। সেখানে গিয়ে বন্ধুর গিটার শেখা দেখেই প্রথম গিটার শেখার ইচ্ছা হয়। পরে টুকটাক গান করতাম আর গিটার বাজাতাম। কলেজের একটি অনুষ্ঠানে বন্ধুরা জোর করে গাইতে বলল। গানটি গাওয়ার পর শ্রোতাদের কাছ থেকে ভালো সাড়া পেলাম। তখন থেকেই ভাবলাম গান গাইব।

শিল্পী হবেন সে রকম ভাবনা কি তখন থেকে?

আমি কখনও ভাবিনি আমি শিল্পী হব। পেশা বা নেশা কোনোটি থেকেই গান শুরু করিনি। খেলাধুলায় খুব ভালো ছিলাম। ঘরে এখনও অনেক পুরস্কার আছে, যা আমি খেলে পেয়েছি। ইচ্ছা ছিল আমি খেলোয়াড় হব। বাবা-মা চাইত আর্মিতে যোগ দিই।

যদি শিল্পী না হতেন তবে কি আপনাকে খেলার মাঠে দেখা যেত?

বিষয়টি এমনই ছিল। আমার বাড়ি খুলনায়। ছোটবেলা ওখানেই কাটিয়েছি। প্রচণ্ড রকমের ফুটবলপাগল ছিলাম। জেলা ও বিভাগ পর্যায়ে অনেক খেলেছি। সবাই খুব উৎসাহ দিত। বলা যায় শিল্পী না হলে খেলোয়াড়ই হতাম।

শিল্পী হিসেবে পূর্ণাঙ্গ যাত্রা কবে থেকে?

১৯৯০ সালে আমরা একটি ব্যান্ড দল গঠন করি। নাম দিলাম ডিফারেন্ট টাচ। এ ডিফারেন্ট টাচের প্রথম অ্যালবামই আলোচনায় চলে আসে। অ্যালবামটির নামও দিয়েছিলাম ডিফারেন্ট টাচ। সে থেকে এখনও সে পথেই চলছি।

জনপ্রিয়তা পেয়েছেন কিন্তু প্রচারে আসেন না কেন?

আমি যখন প্রতিষ্ঠা পাইনি তখনও এমনই ছিলাম। খুব বেশি সামনাসামনি আসতে পছন্দ করি না কোনোকিছুতেই। অনেকটাই অন্তরমুখী স্বভাবের মানুষ আমি। এটা আমার এক ধরনের চারিত্রিক বৈশিষ্ট্য।

আপনার অনেক জনপ্রিয় গান আছে, তার মধ্যে একটি গানের কথা বলুন যেটার পেছনে একটি গল্প আছে…

প্রতিটি গানের পেছনে কোনো না কোনো গল্প থাকে। বিশেষ করে একটি গানের কথা মনে পড়ছে সেটি হচ্ছে ‘তুমি পৃথিবীকে করেছ অনেক ঋণী’। গানটির লেখা ও সুর আমারই। এটি যখন লিখি তখন অনার্সে পড়ি। এক মেয়ের সঙ্গে তখন প্রেম ছিল। সে সময় তাকে ভেবেই গানটি লিখেছিলাম। লিখার আগে ও পরের সময় মিলে প্রায় ১২ বছরের সম্পর্ক আমাদের। বিয়ে পর্যন্ত গড়ায় এ সম্পর্ক। এখন তিনিই আমার ঘরণী।

বর্তমানে ভিডিও বা অনলাইনে গান প্রকাশের পর ভিউয়ারস নিয়েই মাতামাতি বেশি। বিষয়টি কীভাবে দেখছেন?

প্রযুক্তির এমন ব্যবহার আমাদের সবার মেনে নিতে হয়। এটি অবশ্যই ভালো কিছু। যদি কেউ তার অপব্যবহার করে তবে তার দোষ তো সে মাধ্যমের নয়। এর মধ্য থেকেও ভালোমানের অনেক কিছু প্রকাশ পাচ্ছে। তবে এটাও ঠিক যারা এমন মেশিননির্ভর শিল্পী, তারা লাইভে গিয়ে গান করতে পারবেন না। বেশি দিন টিকেও থাকবেন না। তা ছাড়া গান ভালো হলে এমনিতেই শুনবেন শ্রোতারা।

বর্তমান গান নিয়ে আপনার মূল্যায়ন কী?

ভালো-খারাপ দুই ধরনের গানই হচ্ছে। এটা আগে যেমন ছিল এখনও তাই আছে। তবে এখনকার দর্শক-শ্রোতাদের মধ্যে কেমন যেন অস্থিরতা চলে এসেছে। তারা গানকে গান হিসেবে শুনতে চান না। স্টেজে উঠে গান করতে গেলে মনে হয় তারা গান শুনতে নয় শুধু ভিটের তালে নাচতেই এসেছেন। এমন মানসিকতা শিল্পীদের জন্য কষ্টকর। কারণ আমাদের সেসব গান শুনেই তারা আমাদের শিল্পী বানিয়েছেন।

ব্যান্ডের অ্যালবাম প্রকাশে দীর্ঘদিন বিরতি কেন?

আমরা চাইলেই গান প্রকাশ করতে পারি। কিন্তু সবাই মিলে মানসম্মত গান যদি শ্রোতাদের কাছে না পৌঁছাতে পারি তবে এমন অ্যালবাম প্রকাশ করে লাভ কী? তা ছাড়া শুরু থেকেই আমি কম গান প্রকাশ করি কিন্তু ভালোমানের কিছু করার চেষ্টা করি। তাই সময় নিয়ে কাজ গুছাচ্ছি।

আপনার একটি মিউজিক ভিডিও নির্মাণের কথা ছিল?

সর্বশেষ প্রকাশিত অ্যালবামের একটি গানের ভিডিও প্রকাশের কথা বলেছিলাম। সময় সুযোগ হচ্ছে না তাই করতে পারছি না। তা ছাড়া আমি বিশ্বাস করি গান শুনার বিষয় দেখার বিষয় নয়। তাই খুব তাড়া নেই। নিজেদের মতো করে একটা ভিডিও করব যেখানে কোনো আলাদা মডেল থাকবেন না।

দীর্ঘ সঙ্গীত জীবনে পাওয়া-না পাওয়া কোনটি বেশি?

দুটিই আছে। আমি কম গান করে শ্রোতাদের যে ভালোবাসা পেয়েছি তা অনেক বেশি। সে জন্য আমি তাদের কাছে কৃতজ্ঞ। এটা আমার বড় প্রাপ্তি। আর যা কিছু করতে পারিনি তার জন্য নিজেও কিছুটা দায়ী। হয়তো আমি আরও অনেক কিছু করতে পারতাম, যা করা হয়নি।

গানে বর্তমান ব্যস্ততা কী নিয়ে?

আমার অনেক দিনের ইচ্ছা রবীন্দ্র ও নজরুল সঙ্গীতের অ্যালবাম প্রকাশ করব। আপাতত সেগুলোর কাজ করছি। পাশাপাশি স্টেজ শো করি মাঝে মাঝে। ব্যান্ডের নতুন কয়েকটি প্রজেক্টের কাজ শুরু করব। তবে কিছু বিষয় চূড়ান্ত না হলে জানাতে পারছি না।

আপনি তো ব্যান্ডের গান করেন, নজরুল-রবীন্দ্র সঙ্গীতের প্রতি আগ্রহ কেন?

আমি যখন ব্যান্ডে যোগ দিই তার আগে ক্লাসিক্যাল গানও করতাম। তখন রবীন্দ্রসঙ্গীত গাইতাম। সবাই বলত আমার গলায় এ ধারার সঙ্গীত ভালো ওঠে। তখন থেকেই এক রকম ইচ্ছা ছিল। এখন পুরোপুরি প্রতিজ্ঞাবদ্ধ, গিটার বাজিয়ে এ ধারার গান প্রকাশ করব।

সঙ্গীত নিয়ে সামনের দিনগুলোতে কোনো পরিকল্পনা রয়েছে?

গানের সঙ্গে আছি, গানের সঙ্গে থাকতে চাই। তবে সারা জীবন গানের সঙ্গে থাকব তা নয়। যখন মনে হবে আমার গলা থেকে গানের সঠিক গায়কী আসছে না তখন নিজ থেকেই আর গাইব না। এ ছাড়া আলাদা কোনো পরিকল্পনা নেই।

Advertisement বিনোদনসহ যেকোনো বিষয় নিয়ে লিখতে পারেন আপনিও- rupalialo24x7@gmail.com
Click to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

রোদেলা জান্নাত (Rodela Jannat)। ছবি : ফেসবুক
ঢালিউড3 weeks ago

শাকিব খানের নতুন নায়িকা রোদেলা জান্নাত, কে এই রোদেলা : অনুসন্ধানী প্রতিবেদন

রঙ্গন হৃদ্য (Rangan riddo)। ছবি : সংগৃহীত
অন্যান্য3 weeks ago

ভাইরাল রঙ্গন হৃদ্যকে নিয়ে এবার সমালোচনার ঝড়

পূজা চেরি। ছবি : সংগৃহীত
ঢালিউড4 weeks ago

শাকিব খানেও আপত্তি নেই পূজা চেরির

আয়েশা আহমেদ
অন্যান্য2 weeks ago

আয়েশা আহমেদের আবারও আন্তর্জাতিক বিজ্ঞান প্রতিযোগিতায় সাফল্য

শাকিব খানকে পেয়ে যা বললেন নতুন নায়িকা রোদেলা জান্নাত
ঢালিউড3 weeks ago

শাকিব খানকে পেয়ে যা বললেন নতুন নায়িকা রোদেলা জান্নাত

শাকিব খান ও রোদেলা জান্নাত। ছবি : সংগৃহীত
ঘটনা রটনা3 weeks ago

বুবলীর পর এবার সংবাদ পাঠিকা রোদেলা জান্নাতকে নায়িকা বানাচ্ছেন শাকিব খান

পায়েল চক্রবর্তী
টলিউড3 weeks ago

টালিউড অভিনেত্রী পায়েল চক্রবর্তীর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার

ঢালিউড3 weeks ago

এক হচ্ছেন শাকিব খান-নুসরাত ফারিয়া

শিনা চৌহান
অন্যান্য3 weeks ago

শিনা এখন ঢাকায়

অঞ্জু ঘোষ। ছবি : সংগৃহীত
ঢালিউড3 weeks ago

যে কারণে অবশেষে ঢাকায় ফিরলেন চিত্রনায়িকা অঞ্জু ঘোষ

সর্বাধিক পঠিত

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : তাহমিনা সানি
নির্বাহী সম্পাদক : এ বাকের
প্রকাশক : রামশংকর দেবনাথ
বিভাস প্রকাশনা কর্তৃক ৬৮-৬৯ প্যারীদাস রোড, বাংলাবাজার, ঢাকা-১১০০ থেকে প্রকাশিত।
ফোন : +88 01687 064507
ই-মেইল : rupalialo24x7@gmail.com
© ২০১৭ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | রূপালীআলো.কম